ভিক্টোরিয়ায় করোনা পজিটিভ হলে নগদ অর্থ

বিশ্বের অনেক দেশ তাদের নাগরিকদের কোভিড-১৯ টেস্টে আগ্রহী করাতে বিভিন্ন পদক্ষেপ নিয়ে যাচ্ছে। সম্প্রতি অস্ট্রেলিয়ার ভিক্টোরিয়া প্রদেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়ায় টেস্ট করালে ৩০০ ডলার আর পজিটিভ আসলে আরও ১৫০০ ডলার দেবার নিয়ম করা হয়েছে।

তবে এই টাকা পেতে হলে একটি শর্ত আছে। প্রাপককে অবশ্যই চাকরিজীবী হতে হবে এবং তার হাতে ছুটি থাকা চলবে না। এজন্য সরকারের কাছে বেতনের স্লিপ দেখাতে হবে। নয়তো চিঠি লিখে মুচলেকা দিতে হবে।

রাজ্যের প্রধান ড্যানিয়েল অ্যান্ড্রুস নতুন করে এই ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে বেশি বেশি পরীক্ষার ওপর জোর দিয়ে এ পদক্ষেপ নিয়েছেন।

অনেক চাকরিজীবীই আছেন যারা হাতে ছুটি নেই বলে কোভিড-১৯ পরীক্ষাই করাচ্ছেন না। সংক্রমণের লক্ষণ থাকলেও না। যদি রিপোর্ট পজিটিভ আসে, তাহলে তো ছুটি নিতে হয়। তাদের আশঙ্কা ছুটি নিলে বেতন কাটা যাবে। এই আশঙ্কা থেকে নিজেদের সেলফ আইসোলেশনেও রাখছেন না। ফলে সংক্রমণ বাড়ছে। 

ড্যানিয়েলের ধারণা, এদের ৯০ শতাংশই লক্ষণ দেখেও সেলফ আইসোলেশনে যাননি। সামাজিক দূরত্ববিধি মানেননি। হাতে নগদ টাকা পেলে এই চাকরিজীবীরা পরীক্ষা করাতে আগ্রহী হবেন। বেতন কাটার ভয়ে রোগ লুকিয়ে রাখবেন না।

Tags:

এ বিভাগের আরো কিছু সংবাদ

মন্তব্য

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *