কারা পাচ্ছেন অস্ট্রেলিয়া সরকারের জব কিপার পেমেন্ট

অস্ট্রেলিয়া সরকার ঘোষিত জব কিপার পেমেন্টের জন্য কারা পাচ্ছেন বা পাচ্ছেন না ইত্যাদি নিয়ে অনেকে কনফিউশনে আছেন। আমরা চেষ্টা করেছি বিষয়টি পরিস্কার করার। জব কিপার পেমেন্ট হচ্ছে ফোর্থনাইটলি ১৫০০ ডলার। যা দেয়া হবে চাকুরীদাতাদের কাছে। চাকুরীদাতারা এই ১৫০০ ডলার তার কর্মীর কাছে দিবেন। কেউ যদি তার বিজনেস বন্ধ করেও থাকেন, তারাও তার কর্মীদের রাখতে চাইলে এই ব্যবস্থার সাথে যুক্ত হতে পারবেন। আগামী ছয় মাস পর্যন্ত সরকার এই সহায়তা দিয়ে যাবে। কথা হচ্ছে এই ব্যবস্থার অধীনে কে কে থাকছেন। প্রথমত, চাকুরীদাতা কোম্পানীকে এই সহায়তা নিতে রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। কোম্পানী যদি ১ বিলিয়ন ডলারের কম টার্নওভারের হয়, তবে তার বিজনেস গত বছরের থেকে ৩০ শতাংশ ডাউন হতে হবে। আর এক বিলিয়ন ডলারের উপরের হলে তার ক্ষেত্রে ৫০ শতাংশ টার্নওভার কমে যেতে হবে। এভাবে কোম্পানী যদি এই ব্যবস্থায় যেতে পারে তবে তারা সরকারী এই সহায়তা নিতে পারবে।

তাদের ফুল টাইম ওয়ার্কার, পার্ট টাইম ওয়ার্কার ও ক্যাজুয়াল ওয়ার্কারদের জন্য। ক্যাজুয়াল ওয়ার্কারদের মধ্যে যারা এক বছরের বেশি সময় ধরে এই কোম্পানীতে চাকুরী করছেন, শুধু তারাই এই সুবিধা পাবেন। বাকিরা পাবেন না। এরপরে যে কর্মী এই সুবিধা নিবে তাকে অবশ্যই অস্ট্রেলিয়ার পার্মানেন্ট রেসিডেন্ট, সিটিজেন অথবা নিউজিল্যান্ডের সিটিজেন হতে হবে। এর বাইরে বিশাল একটি ওয়ার্কফোর্স রয়েছে। যারা স্টুন্টে বা অন্যান্য টেম্পোরারী ভিসায় আছেন। তাদের কেউ এই সহায়তা পাবেন না । এমনকি যদি তারা কোথাও ফুল টাইম চাকুরী করেন এবং তার কোম্পানী এই সরকারের স্কীম নিয়েও থাকে তাহলেও এই সহায়তার অধিভুক্ত হবেন না তারা। এই স্কীমে যারা পার্ট টাইম জব করেন, এবং স্বাভাবিক সময়ে ফোর্থনাইটলি ১৫০০ ডলারের কম উপার্জন করেন, তারাও ট্যাক্স সহ ১৫০০ ডলার করেই পাবেন।

এই নিয়ম ১ মার্চ থেকে কার্যকর হয়েছে বলে গণ্য করা হবে। তবে কোম্পানী তাদের প্রথম ডলার পাবে মে মাসের প্রথম সপ্তাহে। অস্ট্রেলিয়া সরকারের এই জব কিপার পেমেন্ট অন্তত ৫ মিলিয়ন অস্ট্রেলিয়কে তাদের জব ধরে রাখতে সহায়তা করবে।

Tags:

এ বিভাগের আরো কিছু সংবাদ

মন্তব্য

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *