অস্ট্রেলিয়ায় প্রথমবার বাড়ি ক্রেতাদের জন্য অনন্য সুযোগ

প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন ঘোষণা করেছেন যে, পহেলা জুলাই থেকে সরকার ফার্স্ট হোম লোন ডিপোজিট স্কিমে বর্তমানে যে প্রাইস ক্যাপ রয়েছে তা আমূল বৃদ্ধি করবে।
বর্তমানে এই স্কিমটি ৫০ হাজার ক্রেতাকে যারা প্রথম বারের মত বাড়ি কিনবেন তাদের পাঁচ শতাংশেরও কম ডিপোজিট দিয়ে একটি সম্পত্তি কেনার সুযোগ করে দিয়েছে। বাকি ১৫ শতাংশের জন্য সরকার গ্যারান্টর হিসাবে কাজ করবে।

গতকাল মিঃ মরিসন ঘোষণা করেছেন যে, এই স্কিমের জন্য বাড়ির দামের সীমা প্রায় সমগ্র দেশ জুড়ে তুলে নেওয়া হবে।
১ জুলাই থেকে এই স্কিমটির আওতায় সিডনিতে $৯,০০,০০০ পর্যন্ত এবং মেলবোর্নে $৮,০০,০০০ পর্যন্ত মূল্যের বাড়ির ক্ষেত্রে এই সুবিধা প্রযোজ্য হবে এবং সবগুলো রাজ্য জুড়ে এই সীমা বৃদ্ধি পাবে৷

ফার্স্ট হোম লোন ডিপোজিট স্কিম কি?

নিয়ম হচ্ছে ঋণদাতাদের মর্টগেজ ইন্স্যুরেন্স বা LMI পরিশোধ এড়াতে একজন বাড়ির সম্ভাব্য ক্রেতার কাছে একটি সম্পত্তির মূল্যের ২০ শতাংশ আমানত হিসাবে থাকা আবশ্যক। অস্ট্রেলিয়ার সম্পত্তির দাম গত এক বছরে এক অঙ্কের চেয়ে বেশি বেড়েছে এবং সরকারও এই বিষয়ে সচেতন যে সম্পত্তি কেনার ক্ষেত্রে সবচেয়ে কঠিন অংশটি হচ্ছে আমানতের জন্য সঞ্চয় করা। ফার্স্ট হোম লোন ডিপোজিট স্কিম ৫০,০০০ জন প্রথম বাড়ি ক্রেতাকে ৫ শতাংশের কম ডিপোজিট দিয়ে বাড়ি কেনার সুযোগ করে দিয়েছে, বাকি ১৫ শতাংশের জন্য সরকার গ্যারান্টর হিসাবে কাজ করে যাতে প্রথমবার বাড়ি ক্রেতাদের LMI দিতে না হয়।

Tags:

এ বিভাগের আরো কিছু সংবাদ

মন্তব্য

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *